ঢাকা ০৬:১৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::

বিভিন্ন পরিবহনে চাঁদাবাজির অভিযোগে ১৩ জন কারাগারে

রাজধানীর বিভিন্ন পরিবহন থেকে চাঁদা তোলার অভিযোগে গ্রেফতার ১৩ চাঁদাবাজকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার যাত্রাবাড়ী থানার মামলায় ৬ আসামিকে আদালতে উপস্থিত করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. তোফাজ্জল হোসেন ৬ জনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। কারাগারে যাওয়া আসামির হলেন- ইউসুফ গাজী, মোহাম্মদ ইউসুফ, মো. পিন্টু মিয়া, মো. ডালিম, মো. পাভেল, ও মোহাম্মদ আলী।

যাত্রাবাড়ী-বাবুবাজারে যানবাহন থেকে চাঁদা আদায় করতেন তারা। অন্যদিকে কোতয়ালি থানার মামলায় গ্রেফতার অন্য সাত আসামিকে আদালতে হাজির করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করে পুলিশ। পরে ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আলী হায়দার ৭ জনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এ মামলায় কারাগারে যাওয়া আসামির হলেন- মো. সাব্বির, নাজির হোসেন, মো. কামাল উদ্দিন, মো. বিল্লাল হোসেন, মো. বিল্লাল হোসেন, মো. নাজির উদ্দিন ভূঁইয়া ও মো. রনি হোসেন।

জানা গেছে, সোমবার রাজধানীর যাত্রাবাড়ী ও বাবুবাজার এলাকা থেকে চাঁদাবাজ চক্রের মূলহোতা ইউসুফ ও সাব্বিরসহ ১৩ পরিবহন চাঁদাবাজকে গ্রেফতার করে র‌্যাব-১০। তাদের কাছ থেকে চাঁদার নগদ ৮ হাজার ৪১০ টাকা ও ৬টি কাঠের লাঠি উদ্ধার করা হয়।

মামলা দুটির বিবরণ থেকে গেছে, আসামিরা বেশ কিছুদিন ধরে কোতয়ালি, যাত্রাবাড়ী, ডেমরা ও দক্ষিণ কেরানীগঞ্জসহ আশপাশের এলাকায় ট্রাক, কাভার্ডভ্যান, লরি ও সিএনজি অটোরিকশাসহ বিভিন্ন পরিবহন থেকে জোরপূর্বক চাঁদা আদায় করে আসছিল।

 

Tag :

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল ও অন্যান্য তথ্য সঞ্চয় করে রাখুন

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

জাফলং সহ গোয়াইনঘাটের সবকটি পর্যটন কেন্দ্র খুলে দেওয়া হল

বিভিন্ন পরিবহনে চাঁদাবাজির অভিযোগে ১৩ জন কারাগারে

আপডেট সময় ১২:১২:৩২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২২ মে ২০২৪

রাজধানীর বিভিন্ন পরিবহন থেকে চাঁদা তোলার অভিযোগে গ্রেফতার ১৩ চাঁদাবাজকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার যাত্রাবাড়ী থানার মামলায় ৬ আসামিকে আদালতে উপস্থিত করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. তোফাজ্জল হোসেন ৬ জনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। কারাগারে যাওয়া আসামির হলেন- ইউসুফ গাজী, মোহাম্মদ ইউসুফ, মো. পিন্টু মিয়া, মো. ডালিম, মো. পাভেল, ও মোহাম্মদ আলী।

যাত্রাবাড়ী-বাবুবাজারে যানবাহন থেকে চাঁদা আদায় করতেন তারা। অন্যদিকে কোতয়ালি থানার মামলায় গ্রেফতার অন্য সাত আসামিকে আদালতে হাজির করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করে পুলিশ। পরে ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আলী হায়দার ৭ জনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এ মামলায় কারাগারে যাওয়া আসামির হলেন- মো. সাব্বির, নাজির হোসেন, মো. কামাল উদ্দিন, মো. বিল্লাল হোসেন, মো. বিল্লাল হোসেন, মো. নাজির উদ্দিন ভূঁইয়া ও মো. রনি হোসেন।

জানা গেছে, সোমবার রাজধানীর যাত্রাবাড়ী ও বাবুবাজার এলাকা থেকে চাঁদাবাজ চক্রের মূলহোতা ইউসুফ ও সাব্বিরসহ ১৩ পরিবহন চাঁদাবাজকে গ্রেফতার করে র‌্যাব-১০। তাদের কাছ থেকে চাঁদার নগদ ৮ হাজার ৪১০ টাকা ও ৬টি কাঠের লাঠি উদ্ধার করা হয়।

মামলা দুটির বিবরণ থেকে গেছে, আসামিরা বেশ কিছুদিন ধরে কোতয়ালি, যাত্রাবাড়ী, ডেমরা ও দক্ষিণ কেরানীগঞ্জসহ আশপাশের এলাকায় ট্রাক, কাভার্ডভ্যান, লরি ও সিএনজি অটোরিকশাসহ বিভিন্ন পরিবহন থেকে জোরপূর্বক চাঁদা আদায় করে আসছিল।