ঢাকা ০৯:৫৩ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

অটোমেশনের মাধ্যমে পুঁজিবাজারে শততম কোম্পানির শেয়ার বণ্টন

ইলেকট্রনিক সাবস্ক্রিপশন সিস্টেমের (ইএসএস) মাধ্যমে শেয়ারবাজারে শততম কোম্পানির শেয়ার বণ্টন করল ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। ‘টেকনো ড্রাগস’ নামে এ কোম্পানির শেয়ার মঙ্গলবার ডিএসই ট্রেনিং একাডেমিতে বিনিয়োগকারীদের মধ্যে বরাদ্দ দেওয়া হয়।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ডিএসইর চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. হাফিজ মুহম্মদ হাসান বাবু, ব্যবস্থাপনা পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) সাত্তিক আহমেদ শাহ, প্রধান রেগুলেটরি কর্মকর্তা খাইরুল বাসার আবু তাহের মোহাম্মদ এবং টেকনো ড্রাগসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহ জালাল উদ্দিন আহমেদ।

ড. হাফিজ মুহম্মদ হাসান বাবু বলেন, প্রধানমন্ত্রী যে স্মার্ট বাংলাদেশের চিন্তা করছেন, এর একটি ছোট নমুনা হলো ইএসএস সফটওয়্যারের ১০০তম ইস্যু পরিচালনা। ডিএসই স্মার্ট বাংলাদেশের অটোমেশনের হাব হতে পারে।

তিনি বলেন, বিশ্বব্যাপী ক্যাপিটাল মার্কেট ডিজিটালাইজেশন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে চলছে। এখন পুঁজিবাজারের অধিকাংশ কাজ টেকনোলজির মাধ্যমে হবে। স্মার্ট বাংলাদেশ সেদিন বাস্তবায়িত হবে, যেদিন আমরা নিজস্ব টেকনোলজি ব্যবহার করে কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারব। এই ইএসএস সফটওয়্যারের মাধ্যমে শুধু অর্থসাশ্রয় করিনি। এতে প্রাথমিক শেয়ার (আইপিও) প্রক্রিয়ায় স্বচ্ছতা বৃদ্ধি ও সময় কমিয়ে আনা হয়েছে। একই সঙ্গে এর মাধ্যমে আমরা সুশাসন নিশ্চিত করতে পারছি।

Tag :

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল ও অন্যান্য তথ্য সঞ্চয় করে রাখুন

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

অটোমেশনের মাধ্যমে পুঁজিবাজারে শততম কোম্পানির শেয়ার বণ্টন

আপডেট সময় ১২:৩৮:৫৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ জুলাই ২০২৪

ইলেকট্রনিক সাবস্ক্রিপশন সিস্টেমের (ইএসএস) মাধ্যমে শেয়ারবাজারে শততম কোম্পানির শেয়ার বণ্টন করল ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। ‘টেকনো ড্রাগস’ নামে এ কোম্পানির শেয়ার মঙ্গলবার ডিএসই ট্রেনিং একাডেমিতে বিনিয়োগকারীদের মধ্যে বরাদ্দ দেওয়া হয়।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ডিএসইর চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. হাফিজ মুহম্মদ হাসান বাবু, ব্যবস্থাপনা পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) সাত্তিক আহমেদ শাহ, প্রধান রেগুলেটরি কর্মকর্তা খাইরুল বাসার আবু তাহের মোহাম্মদ এবং টেকনো ড্রাগসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহ জালাল উদ্দিন আহমেদ।

ড. হাফিজ মুহম্মদ হাসান বাবু বলেন, প্রধানমন্ত্রী যে স্মার্ট বাংলাদেশের চিন্তা করছেন, এর একটি ছোট নমুনা হলো ইএসএস সফটওয়্যারের ১০০তম ইস্যু পরিচালনা। ডিএসই স্মার্ট বাংলাদেশের অটোমেশনের হাব হতে পারে।

তিনি বলেন, বিশ্বব্যাপী ক্যাপিটাল মার্কেট ডিজিটালাইজেশন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে চলছে। এখন পুঁজিবাজারের অধিকাংশ কাজ টেকনোলজির মাধ্যমে হবে। স্মার্ট বাংলাদেশ সেদিন বাস্তবায়িত হবে, যেদিন আমরা নিজস্ব টেকনোলজি ব্যবহার করে কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারব। এই ইএসএস সফটওয়্যারের মাধ্যমে শুধু অর্থসাশ্রয় করিনি। এতে প্রাথমিক শেয়ার (আইপিও) প্রক্রিয়ায় স্বচ্ছতা বৃদ্ধি ও সময় কমিয়ে আনা হয়েছে। একই সঙ্গে এর মাধ্যমে আমরা সুশাসন নিশ্চিত করতে পারছি।