ঢাকা ০৩:০৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১৭ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
কুমিল্লার মুরাদনগরে গরিব দুঃস্থদের মাঝে কম্বল বিতরণ করলেন স্থানীয় এমপি আসছে হালিম মজুমদারের পরিচালনায় রোমহর্ষক গল্পের নাটক ‘বিস্ময় বালিকা’ জমকালো আয়োজনে শার্শার বাগ আঁচড়ায় এশিয়ান টিভির প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন কুমিল্লা নগরীর ডাস্টবিনে নবজাতকের লাশ ১৯১ অনলাইন পোর্টাল বন্ধে তথ্য মন্ত্রণালয়ের চিঠি ঝিকরগাছায় থানা পুলিশের তৎপরতায় বিদেশি মদ সহ এক মাদক চোরাকারবারি আটক সময়ও কথা সাপ্তাহিক পত্রিকার উদ্বোধন কুমিল্লায় হোটেল তদার‌কি অ‌ভিযা‌নে দুই প্রতিষ্ঠান‌কে ১লাখ ২০ হাজার টাকা জ‌রিমানা কুমিল্লা জেলা গোয়েন্দা শাখা বিশেষ অভিযানে অস্ত্র ও গুলিসহ আটক ১ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পেলেন খাদিজা আক্তার পূর্ণী

৩ বছর ধরে তলিয়ে যাচ্ছে ভারতের জোশিমঠ!

ভারতের গঢ়ওয়াল হিমালয়ের জোশিমঠ এবং এর আশপাশের এলাকা ধীরে ধীরে মাটিতে তলিয়ে যাচ্ছে। যার হার বছরে প্রায় আড়াই ইঞ্চি (সাড়ে ৬ সেন্টিমিটার)। আজ থেকে তিন বছর আগে এক সমীক্ষায় এই তথ্য প্রকাশিত হয়েছিল।

মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) দেহরাদূনের সরকারি সংস্থা ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অব রিমোট সেন্সিং-এর সেই সমীক্ষার রিপোর্টটি প্রকাশ্যে এনেছে ভারতীয় এক সংবাদমাধ্যম। নরেন্দ্র মোদির সরকার জোশিমঠের সমীক্ষার প্রাথমিক ফলটি দেখে সময়মত পদক্ষেপ নিলে আজ বিপর্যয়ের মুখোমুখি হতে হতো না বলেও দাবি করছেন বিশেষজ্ঞরা।

কিন্তু এরপরও কেন্দ্রীয় সংস্থা এনটিপিসির তপোবন জলবিদ্যুৎ প্রকল্পের উদ্দেশে সুড়ঙ্গ খোঁড়ার পাশাপাশি পাহাড়ের ভেতরে একের পর এক বিস্ফোরণ ঘটিয়ে প্রাকৃতিক ভারসাম্য নষ্ট করার কার্যক্রম বন্ধ করা হয়নি। এছাড়া মোদির স্বপ্নের চারধাম প্রকল্পে পাহাড় কেটে রাস্তা তৈরির কার্যক্রমও চলমান। যার পরিণতিতে বিপর্যয়ের মুখে পড়েছে বদ্রীধামের প্রবেশদ্বার।

Tag :

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published.

আপনার ইমেইল ও অন্যান্য তথ্য সঞ্চয় করে রাখুন

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

কুমিল্লার মুরাদনগরে গরিব দুঃস্থদের মাঝে কম্বল বিতরণ করলেন স্থানীয় এমপি

৩ বছর ধরে তলিয়ে যাচ্ছে ভারতের জোশিমঠ!

আপডেট সময় ০১:২০:২৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১১ জানুয়ারী ২০২৩

ভারতের গঢ়ওয়াল হিমালয়ের জোশিমঠ এবং এর আশপাশের এলাকা ধীরে ধীরে মাটিতে তলিয়ে যাচ্ছে। যার হার বছরে প্রায় আড়াই ইঞ্চি (সাড়ে ৬ সেন্টিমিটার)। আজ থেকে তিন বছর আগে এক সমীক্ষায় এই তথ্য প্রকাশিত হয়েছিল।

মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) দেহরাদূনের সরকারি সংস্থা ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অব রিমোট সেন্সিং-এর সেই সমীক্ষার রিপোর্টটি প্রকাশ্যে এনেছে ভারতীয় এক সংবাদমাধ্যম। নরেন্দ্র মোদির সরকার জোশিমঠের সমীক্ষার প্রাথমিক ফলটি দেখে সময়মত পদক্ষেপ নিলে আজ বিপর্যয়ের মুখোমুখি হতে হতো না বলেও দাবি করছেন বিশেষজ্ঞরা।

কিন্তু এরপরও কেন্দ্রীয় সংস্থা এনটিপিসির তপোবন জলবিদ্যুৎ প্রকল্পের উদ্দেশে সুড়ঙ্গ খোঁড়ার পাশাপাশি পাহাড়ের ভেতরে একের পর এক বিস্ফোরণ ঘটিয়ে প্রাকৃতিক ভারসাম্য নষ্ট করার কার্যক্রম বন্ধ করা হয়নি। এছাড়া মোদির স্বপ্নের চারধাম প্রকল্পে পাহাড় কেটে রাস্তা তৈরির কার্যক্রমও চলমান। যার পরিণতিতে বিপর্যয়ের মুখে পড়েছে বদ্রীধামের প্রবেশদ্বার।